• কবুতরের পোলাও


    উপকরণ : পোলাওয়ের চাল ১ কেজি, কবুতর ৬টি, ঘি আধা কাপ, তেল ১ কাপ, আদা বাটা ২ টেবিল চামচ, রসুন বাটা ১ টেবিল চামচ, পোস্তদানা বাটা ২ টেবিল চামচ, বাদাম বাটা ২ টেবিল চামচ, টক দই আধা কাপ, মিষ্টি দই সিকি কাপ, দুধ ১ কাপ, পেঁয়াজ বাটা সিকি কাপ,

    বিস্তারিত পড়ুন...

আস্ত মুরগির রোস্ট


উপকরণ: গোটা মুরগি- দেড় কেজি (চামড়া সহ), গাজর- ২টা, আলু-২টা, রসুন- একটা গোটা, অলিভ অয়েল-১/২ কাপ, লবণ ও সামান্য বিট লবণ- পরিমান মতো, টাটকা গুঁড়ো করা গোলমরিচ- স্বাদ মতো, কমলার রস- ১/৪ কাপ, এক গোছা থাইম, রোজমেরি, তেজ পাতা, সেজ বা সব হার্বের মিশেল এক গুচ্ছ। তাজা না পেলে

বিস্তারিত পড়ুন...

ইলিশ মাছের রোস্ট


উপকরণ : ইলিশ মাছ ১টি, পেঁয়াজ বাটা ১ কাপ, কাঁচামরিচ কাটা ৪-৫টি, মরিচ গুঁড়া ১ চা চামচ, সয়াবিন তেল আধা কাপ, লবণ পরিমাণমতো, আদা বাটা ১ চা চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, পেঁয়াজ বেরেস্তা।

প্রস্তুত প্রণালি : মাছ টুকরা করে কেটে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিন। চুলার পাত্রে তেল দিন। তেল গরম হলে বাটা পেঁয়াজ দিন, মরিচ গুঁড়া, লবণ, আদা

বিস্তারিত পড়ুন...

পাঁচমিশালি মসালা স্যুপ


উপকরণঃ তেল ৩ টেবিল-চামচ, পেঁয়াজ একটা, হাড়ছাড়া মুরগির মাংস ১ কাপ লম্বা টুকরা, বেবি কর্ন টুকরা ১ কাপ, গাজর টুকরা ১ কাপ, টমেটো লম্বা টুকরা ১টা, আদাকুচি ১ চামচ, রসুনকুচি ১ চা-চামচ, কাঁচামরিচ ১ টেবিল-চামচ, চিংড়ির কুচি বড় বড় আধা কাপ, ভিনেগার ৩ টেবিল-চামচ, লেবুর রস ২ টেবিল-চামচ, পানি ৪ কাপ, থাইপাতা ২-৩টা, লেবুর পাতা ৪টা,লবণ

বিস্তারিত পড়ুন...

ভাপা পিঠা


উপকৱনঃ চালের গুঁড়ো ৪ কাপ, লবণ আন্দাজমতো, নারকেল কুরানো আধা কাপ, খেজুর গুড় ১ কাপ।


প্রনালীঃচালের গুঁড়োতে লবণ ও পানি মেশান। এমন

বিস্তারিত পড়ুন...

গ্যাসের চুলাতে প্রন তন্দুরি!


উপকরন: চিংড়ি মাছ – ৫০০ গ্রাম, ঘি বা মাখন – ২ চা চামচ, টক দই – ২ চা চামচ, আদা বাটা – ১ চা চামচ, রসুন বাটা – ১ চা চামচ, দারচিনি গুঁড়া – অল্প, বড় এলাচ – ১ টি, জিরা গুঁড়া – ১ চা চামচ, ধনে গুঁড়া – ১ চা চামচ

বিস্তারিত পড়ুন...

গমের আটার লাড্ডু


উপকরণঃ ১ কাপ গমের আটা ,১/২ কাপ সুগার, ১/৩ কাপ ঘি, ৮ পিস কাজু , ১০ পিস পেস্তা, ১২ পিস বাদাম , ১/২ চ়া চামচ দারুচিনি গুড়া।

প্রণালীঃ গমের আটা ভালো করে রোস্ট করতে হবে একটু ব্রাউন কালার হলেই রোস্ট হই যাবে খেআল রাখতে হবে যাতে নিচে পুড়ে না যাই। সুগার ও সব বাদাম গুলি ভালো করে গুড়া করে নিতে হবে. কেও

বিস্তারিত পড়ুন...

কিমা স্যান্ডউইচ


উপকরণঃ মাংসের কিমা – ২০০ গ্রাম, ছোটো সাইজের পেঁয়াজ – ২টো, আদা বাটা – ১ চা চামচ, মরিচ বাটা – ১ চা চামচ, শুকনা মরিচ গুঁড়ো – ১ চা চামচ, সামান্য হলুদ, সাদা তেল – আড়াই চামচ, ধনেপাতা কুচোনো, নুন – আন্দাজমতো, মাখন – ৮ চা চামচ, পাঁউরুটি

বিস্তারিত পড়ুন...

মার্বেল কেক


উপকরণঃ ময়দা - ১/২ কাপ, ডিম - ৪টি, তেল - ১ কাপ, চিনি - ১ কাপ, বেকিং পাউডার - ১ চা চামচ, কোকো পাউডার - ১/২ কাপ, ভ্যানিলা - ১/২ চা চামচ, গুড়া দুধ: ১ টেবিল চামচ।

বিস্তারিত পড়ুন...

ছানার পুডিং(বড়দিন স্পেশাল)


উপকরণ : ছানা এক কাপ, ডিমের সাদা অংশ (দুটি ডিমের), গুঁড়ো দুধ- আধা কাপ, চিনি-আধা কাপ, পানি-আধা কাপ, এলাচগুঁড়া চা চামচের চার ভাগের এক ভাগ ও পাকা আমের টুকরা (ছোট ছোট) দেড় কাপ।

প্রণালী : আম ছাড়া ওপরের সব উপকরণ একসঙ্গে

বিস্তারিত পড়ুন...

হায়দ্রাবাদী চিকেন বিরিয়ানি:


উপকরণ: ময়দা ১ কাপ, গরম পানি প্রয়োজন মত, জাফরান সামান্য, দুধ আধা কাপ, ঘি: ২ টেবিল চামচ, পুদিনা পাতা, ধনে পাতা কুচি: ১ কাপ, কাচা মরিচ কুচি: ইচ্ছে মত, পেয়াজ কুচি ৩ টি বড়, কাজুবাদাম: ৮-১০ টি, পেস্তাবাদাম:৮-১০ টি, কিসমিস: আধা কাপ।


মাংসের উপকরণ: মুরগি: ১ কেজি (একটু বড় করে টুকরা করা), তেল ৩/৪ কাপ, আদা বাটা ১ চা চামচ, রসুন বাটা ১ চা চামচ, গরম মসলা গুড়া(এলাচ, দারচিনি, জয়ফল, জয়ত্রী, গোল মরিচ) অথবা বিরিয়ানি মসলা:8 টেবিল চামচ,লবন: প্রয়োজন মত(বিরিয়ানির মসলা ব্যবহার করলে লবন বুঝে দিতে হবে. কারণ প্যাকেট এর মসলায় লবন থাকে), লেবুর রস: ২ টেবিল চামচ, টক দই : ৩ কাপ।

বিরিয়ানির ভাত রান্না: বাসমতি চাল: আধা কেজি, তেজপাতা ২ টি, এলাচ: ৫ টি, দারুচিনি: ২ টুকরা, লবন: ১ টেবিল চামচ।

প্রণালী: মাংস ভালো করে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিতে হবে. মাংসের সব উপকরণ বিরিয়ানি রান্নার হাড়িতে মিশিয়ে ২-৩ ঘন্টা একটু ঠান্ডা জায়গায় রেখে দিতে হবে. সারা রাত মেরিনেট করে রাখলে আরো ভালো. ময়দায় গরম পানি দিয়ে রুটির কাই তৈরী করে রাখতে হবে. জাফরান দুধে ভিজিয়ে রাখতে হবে. পেয়াজ বেরেস্তা করে এক পাশে রাখতে হবে. ২ রকমের বাদাম তেল এর মধে হালকা ভেজে নিতে হবে. একটি বড় হাড়িতে পানি গরম দিতে হবে. পানি গরম হলে তাতে ভাত রান্নার উপকরণ(চাল বাদে) দিতে হবে. পানি ভালো মত ফুটে চাল ছেড়ে দিতে হবে.চাল আধা ফুটে গেলে চালনির নিচে কোনো বড় পত্র দিয়ে ছেঁকে নিতে হবে. যাতে কিছু মাড় অবশিষ্ট থাকে। আরেক পাশে মাংসের হাড়ি টি চুলার উপর অল্প আচে বসিয়ে মাংসের উপর পেয়াজ বেরেস্তা, পুদিনা, ধনেপাতা, কাচা মরিচ, বাদাম, কিসমিস সুন্দর করে ছড়িয়ে দিতে হবে. এবার আধা ফোটা চাল মাংসের উপর বিছিয়ে দিতে হবে. চালের উপর ঘি, জাফরান ভিজানো দুধ র ১ কাপ ভাতের মার ছড়িয়ে দিতে হবে. এবার কাই করা ময়দা দিয়ে পাত্রের চারপাশে ছড়িয়ে ভালো করে ঢেকে দিতে হবে. এলুমিনিয়াম ফয়েল পেপার থাকলে ময়দার বদলে সেটা বেবহার করা যেতে পারে. অল্প আচে এভাবে ২৫-৩০ মিনিট রান্না করতে হবে. বিরিয়ানির সুগন্ধ বের হলে বুঝতে হবে রান্না হয়ে গিয়েছে। তোলার সময় পাত্রের সাইড থেকে চাল ও মাংস একসাথে তুলে সালাদ দিয়ে পরিবেশন করতে হবে.
এই বিরিয়ানি ওভেন এও করা যায়. সে ক্ষেত্রে ওভেন প্রুফ পাত্র ব্যবহার করতে হবে. ১১০° তে পাত্রকে এলুমিনিয়াম ফয়েল পেপার দিয়ে ভালো মত ঢেকে ৩০ মিনিটের মত(অথবা বিরিয়ানির সুগন্ধ বের হওয়া পর্যন্ত) কুক করতে হবে.